31.3 C
Durgapur
Wednesday, May 19, 2021

জয়া বিজয়া সহ লক্ষ্মীপূজোর আয়োজন সিউড়িতে

নিজস্ব সংবাদদাতা,বীরভূম: সৌভাগ্য ও সমৃদ্ধির দেবী লক্ষ্মী । দুর্গাপুজো পরবর্তীতে কোজাগরী লক্ষ্মীর (Laxmi puja) আরাধনাকে কেন্দ্র করে আরও একবার মেতে ওঠে বাঙালি। শুক্রবার কোজাগরী পূর্ণিমার দিন সিউড়ির আরবিন্দপল্লিতে লক্ষ্মীর সাথে সাথে পূজিত হচ্ছেন তার দুই সখী জয়া ও বিজয়া।

অরবিন্দপল্লীর রায়ভিলাতে এবছরই প্রথম লক্ষ্মীপুজোর (Laxmi puja) আয়োজন করা হয়েছে। রায়বাড়ির নিজস্ব পূজো রাজগ্রামের গোড়শা গ্রামে। পূর্বপাড়া আর পশ্চিমপাড়ার লড়াইয়ে জমে ওঠে লক্ষ্মীপুজো। সেখানে রায় বাড়িতে দুর্গাপূজা হলেও হয় না কোনো প্রতিমা। তাই মৃন্ময়ী মূর্তির মুখ দেখা হয় না রায়বাড়িতে।
সেই আক্ষেপ দূর করতে পরিবারের সদস্য চয়ন রায় ১৮ বছর আগে লক্ষ্মী পুজোর (Laxmi puja) সূচনা করেন গোড়শা গ্রামে ।

কিন্তু, এবার কোভিড পরিস্থিতিতে গ্রামের বাড়িতে না গিয়ে সিউড়ির বাড়িতেই সূচনা হলো লক্ষ্মীপুজোর (Laxmi puja)। উদ্যোক্তা চয়ন রায় বলেন, প্রথা মেনে শ্রাবণ মাসের পূর্ণিমার দিন মাটি দেওয়া হয় । ভাদ্র মাসে মায়ের গায়ে হাত দেওয়া হয় না। আশ্বিন মাসে প্রতিমা তৈরী ও রঙ হয়। কোজাগরী পূর্ণিমার সন্ধ্যায় লক্ষ্মীকে বেদীতে বসানো হয় ।

পরিবারের আরেক সদস্য রাজেন্দ্র প্রসাদ চট্টরাজ বলেন, রাজগ্রামের গোড়শা গ্রামে দুর্গাপূজার থেকে ও বেশি ধূম হয় লক্ষ্মীপুজোয় (Laxmi puja) । সারারাত ধরে কবিগান, লেটো, ঘোড়ানাচ, আদিবাসী নৃত্য হয়। বির্সজন পর্বও চলে সারারাত ধরে। কিন্তু এবার কোভিড পরিস্থিতিতে সেখানে যাওয়া সম্ভব না হওয়ায় সিউড়িতেই পরিবারের সদস্যদের নিয়ে লক্ষ্মীপুজোর (Laxmi puja) আয়োজন করা হলো।

এই মুহূর্তে

x