18.3 C
Durgapur
Saturday, January 23, 2021

৮ মাস ধরে শয্যাশায়ী ছেলে, সংসারের জোয়াল মা আলোর কাঁধেই

মনোজিৎ গোস্বামী, কাঁকসা: “ক্ষুধা যে কি ভয়ানক বিপদ,তাহা আমরা অনেকে কল্পনাও করিতে পারি না” কবিগুরু লিখে গিয়েছিলেন অনেক বছর আগে।ভেবেছিলেন একদিন হয়তো এ বিশ্ব থেকে ক্ষুধার্ত মানুষের আর্তনাদ বন্ধ হবে।কিন্তু বাস্তবে যে হয়নি তার প্রমাণ বার বার পাই আমরা।

তেমনি এক ক্ষুধার্ত অসহায় মানুষ আলো ক্ষেত্রপাল । ৮ মাস ধরে শয্যাশায়ী ছেলে , সংসারের জোয়াল নিজের কাঁধে টেনে লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন আলো দেবী। এ যেন এক অন্য মায়ের (Mother) গল্প। কাঁকসার প্রয়াগপুরের বাসিন্দা আলো দেবী পরিচারিকার কাজ করতেন । কিন্তু করোনা পরিস্থিতিতে সে কাজও বন্ধ হয়ে যায়। আঠারো বছরের ছেলে সাউল পায়ে ইনফেকশন হওয়ার পর থেকে আট মাস ধরে শয্যাশায়ী । অর্থের অভাবে চিকিৎসাও বন্ধ ।

চারজনের সংসারে একবেলা খাবার জোটে একবেলা জোটে না। লকডাউনের সময় তাও রাজনৈতিক নেতারা খাবার দিত এখন সেটাও বন্ধ। যে একবেলা খাবার জোটে সেটাও প্রতিবেশীরা সাহায্য করে বলে জোটে । দিন কয়েক আগে একটি বাড়িতে পরিচারিকার কাজে যোগ দেন আলো। বেতন পাঁচশো টাকা।চারজনের পেটে ভাত, অসুস্থ সন্তান । স্বভাবতই দিশেহারা আলো ক্ষেত্রপাল।

সমস্ত ঘটনা জানানো হয় কাঁকসা পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি নিখিল ডোমকে। তিনি দ্রুত কিশোরের চিকিৎসার ব্যবস্থা ও পরিবারটির মুখে পর্যাপ্ত খাবার তুলে দেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন।

এক মৃন্ময়ী মা তার ছেলেপুলে নিয়ে মর্তে আসছেন তাঁকে বরণ করে নিতে আয়োজনের শেষ নেই ,অন্য চিন্ময়ী মা আকাশের ঝলসানো রুটি দেখে সন্তানের ক্ষুধা মেটাচ্ছেন ।

এই মুহূর্তে

x

php shell shell indir hacklink ko cuce